২৯ জানুয়ারি, ২০২২ | ১৫ মাঘ, ১৪২৮

গেজেট প্রকাশের দাবীতে আলীকদম সদর ইউপি চেয়ারম্যান ও মেম্বারদের সম্মেলন সম্মেলন

প্রকাশ : শুক্রবার, ১৪ জানুয়ারি, ২০২২

মোহাম্মদ রফিকুল ইসলাম, লামা

  • আলীকদম ইউপির নির্বাচন সুষ্ঠু ও নিরপেক্ষ হয়েছে।
  • ‘মিথ্যা অভিযোগ করে ব্যক্তিস্বার্থ চরিতার্থ করা হচ্ছে।’
  • সরকার, প্রশাসন ও নির্বাচন কমিশনের মর্যাদা ক্ষুণ্ণের অভিযোগ।’
  • ‘অভিযোগের প্রতিটি ছত্রই মিথ্যায় পরিপূর্ণ ও অপতথ্যে ভরা।’

৩য় ধাপে গত ২৮ নভেম্বর অনুষ্ঠিত আলীকদম সদর ইউনিয়ন পরিষদের নির্বাচিত চেয়ারম্যান ও মেম্বারগণের নামে গেজেট প্রকাশ ও শপথ অনুষ্ঠান এখনো হয়নি।

পরাজিত বিদ্রোহী চেয়ারম্যান প্রার্থীর করা এক অভিযোগের প্রেক্ষিতে নির্বাচন কমিশন এ সিদ্ধান্ত নেন।

এ অবস্থার উত্তোরণের দাবীতে শুক্রবার (১৪ জানুয়ারি) বিকাল পাঁচটায় সংশ্লিষ্ট ইউনিয়নের চেয়ারম্যান, সদস্যা ও মহিলা সদস্যাগণ সংবাদ সম্মেলন করেছেন।

এতে লিখিত বক্তব্য পাঠ করেন নবনির্বাচিত ও বর্তমনা চেয়ারম্যান মোহাম্মদ নাছির উদ্দিন।

লিখিত বক্তব্যে তিনি বলেন, গত ২৮ নভেম্বর ৩য় দাপে বান্দরবান জেলার আলীকদম উপজেলার ৪টি ইউনিয়ন পরিষদে নির্বাচন অনুষ্ঠিত হয়।

নির্বাচনটি অবাধ, সুষ্ঠু, নিরপেক্ষ ও শান্তিপূর্ণ হয়েছে মর্মে সরকারি গোয়েন্দা সংস্থা, নির্বাচন পর্যবেক্ষক হিসেবে দায়িত্ব পালনকারী আলীকদম, লামা ও বান্দরবান জেলা সদরের সাংবাদিকরা জাতীয়, আঞ্চলিক ও স্থানীয় সংবাদপত্রে সংবাদ প্রকাশ করেছেন।

পাশাপাশি ইলেক্ট্রনিক্স মিডিয়া-টিভি ও রেডিওতে শান্তিপূর্ণ নির্বাচন নিয়ে খবর প্রচারিত হয়।

স্থানীয় প্রশাসনের পাশাপাশি সেনা বাহিনী, র‌্যাব, বিজিবির সদস্যরা সার্বক্ষণিক তদারকিতে নির্বাচন অনুষ্ঠিত হয়। মাঠে ছিলেন নির্বাহী ম্যাজিস্ট্রেটগণ।

এ নির্বাচন নিয়ে কোন মহল থেকেই কোনরূপ নেতিবাচক প্রশ্ন উত্তাপিত হয়নি।

সংবাদ সম্মেলনে প্রত্যেক ওয়ার্ড থেকে নির্বাচিত মেম্বার এবং মহিলা মেম্বারগণ উপস্থিত ছিলেন। এতে অতিথি হিসেবে উপস্থিত ছিলেন উপজেলা আওয়ামী লীগের সাধারণ সম্পাদক ও পার্বত্য জেলা পরিষদ সদস্য দুংড়ি মং মার্মা, বান্দরবান জেলা আওয়ামী লীগের সদস্য অংশেথোয়াই মার্মা, উপজেলা আওয়ামী লীগের সহ-সভাপতি কামরুল হাসান টিপু ও সমর রঞ্জন বড়ুয়া প্রমুখ।

নব নির্বাচিত ও বর্তমান চেয়ারম্যান মোহাম্মদ নাছির উদ্দিন লিখিত বক্তব্যে আরো বলেন, সরকারি-বেসরকারি কোন সংস্থা থেকে ২৮ নভেম্বরের অনুষ্ঠেয় নির্বাচন নিয়ে প্রশ্ন উত্থাপিত না হলেও পরাজিত প্রার্থী মিথ্যা অভিযোগ করে নির্বাচনকে ব্যক্তিস্বার্থে বিতর্কিত করে চলেছে। এরফলে সরকার, প্রশাসন ও নির্বাচন কমিশনের মর্যাদা ক্ষুণ্ণ হচ্ছে।

লিখিত বক্তব্যে বলা হয়, আলীকদম উপজেলার ৩ ইউনিয়নের চেয়ারম্যান ও মেম্বারগণের শপথ ইতোমধ্যে হয়ে গেছে।

কিন্তু কাল্পনিক অভিযোগের জের ধরে নির্বাচন কমিশন এখনো পর্যন্ত গেজেট প্রকাশ না করে সরকারকে বিতর্কিত করছে। খোদ নির্বাচন কমিশনও এতে বিতর্কিত হচ্ছেন।

নব নির্বাচিত চেয়ারম্যান নাছির উদ্দিন অনতিবিলম্বে গণরায়ে নির্বাচিত চেয়ারম্যান ও মেম্বারদের নামে গেজেট প্রকাশ ও শপথ অনুষ্ঠান সম্পন্ন করতে নির্বাচন কমিশন ও সরকারের সংশ্লিষ্ট মহলের প্রতি আহ্বান জানান।

বিজ্ঞাপন

ট্যাগ :